jagannathpurpotrika-latest news

আজ, ,

সর্বশেষ সংবাদ
«» জগন্নাথপুরে মিরপুর ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী শেরীন বিশাল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত «» ছাত্র মজলিস শ্যামপুর থানার বার্ষিক কর্মী সমাবেশ অনুষ্ঠিত «» জগন্নাথপুরে রাত পোহালেই ভোট যুদ্ধ শুরু ॥ কে হচ্ছেন সেই ভাগ্যবান চেয়ারম্যান «» ছাতকের কিলবার্ণ এন্ড হামস্টেড মুসলিম কালচারাল সেন্টারের ইমাম ও খতিবকে সংবর্ধনা «» ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের সহযোগী সদস্য সমাবেশে আবাসিক হলগুলোতে গড়ে ওঠা টর্চার সেল ধ্বংস করতে হবে: ছাত্র মজলিস «» ছাত্র মজলিস ঢাকা মহানগরী উত্তরের বার্ষিক সহযোগী সদস্য সমাবেশ অনুষ্ঠিত «» প্রধানমন্ত্রী-রাষ্ট্রপতি নিয়ে কটাক্ষ, সিলেটের মোগলবাাজার থেকে আটক ১ «» ছাত্রলীগের মিছিলে খুনের রক্ত: ভিপি নুর «» ছাত্র জমিয়তের মতবিনিময় সভায় অাগামি ১১ জানুয়ারী সিলেট বিভাগীয় সদস্য সম্মেলন ঘোষণা «» ফেসবুক ব্যবহারকারীদের উদ্দেশ্যে শাহীনুর পাশা চৌধুরীর কিছু কথা



কোয়ার্টার ফাইনালে ব্রাজিল

স্পোর্টস ডেস্ক :: আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণে জমজমাট ম্যাচে মেক্সিকোকে ২-০ গোলে হারিয়ে রাশিয়া বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে পৌঁছে গেল ব্রাজিল। শিরোপা জয়ের হেক্সা মিশনে থাকা দলটিকে গোল উপহার দেন সুপারস্টার নেইমার এবং ফিরমিনো। অন্যদিকে দারুণ শুরুর পর গোল খেয়ে এলোমেলো হয়ে যায় মেক্সিকোর খেলা। আক্রমণের ধার কমে যায়। একের পর এক ফাউলের শিকার হন নেইমার। তারপরেও হেক্সা মিশনে আরও একধাপ এগিয়ে যায় লাতিন আমেরিকার দেশটি। সামারা অ্যারেনায় ম্যাচের শুরু থেকেই ব্রাজিলের ডিফেন্সে আক্রমণ চালিয়ে যেতে থাকে মেক্সিকো। তখন ডিফেন্স নিয়ে ব্যস্ত থাকলেও দ্রুতই সামলে ওঠে ব্রাজিল। শুরু হয় পাল্টা আক্রমণ। নেইমারকে আটকে রাখার কাজ প্রথমার্ধে খুব সূঁচারুরূপেই দেখিয়েছে মেক্সিকো। ব্রাজিল সুপারস্টারকে ফাউলের শিকার হতে হয় একবার।

 

২৫তম মিনিটে পায়ের সেই জাদুকরী ড্রিবলিংয়ে মেক্সিকান ডিফেন্ডারদের কাটিয়ে খুব কাছ শট নিয়েছিলেন নেইমার। কিন্তু তৎপর ওচোয়া হাত লাগিয়ে সেই চেষ্টা ব্যর্থ করে দেন। এরপর খেলায় ফেরে ব্রাজিল। ৩২তম মিনিটে আবারও ডি-বক্সে ঢুকে শট নিয়েছিলেন নেইমার। কিন্তু এবারও তাকে ব্যর্থ হতে হয়েছে। রুদ্ধশ্বাস আক্রমণ-প্রতিআক্রমণের মাঝেও গোলশূন্য কাটে প্রথমার্ধ।

 

দ্বিতীয়ার্থের তৃতীয় মিনিটে ডি-বক্সের ভেতর থেকে কুতিনহোর জোড়ালো শট ঠেকিয়ে দেন গোলকিপার। অবশেষে ব্রাজিলকে কাঙ্খিত গোল উপহার দেন সুপারস্টার নেইমার। ৫৩তম মিনিটে ডি-বক্সের ঠিক বাইরে তার বুদ্ধিদীপ্ত ব্যাক হিলে বল পেয়ে সামনে এগিয়ে বাঁ দিক থেকে নিচু ক্রস বাড়ান উইলিয়ান। বল গোলকিপারের বাড়ানো হাত আর গাব্রিয়েল জেসুসের পা ফাঁকি দিলেও নেইমার ব্যবধান ১-০ করেন।

 

৬৮তম মিনিটে পাল্টা আক্রমণে আবারও মেক্সিকোর রক্ষণে আতঙ্ক ছড়ান উইলিয়ান। দুর্দান্ত গতিতে বাঁ দিক দিয়ে এগিয়ে ক্রস দিয়েছিলেন নেইমারকে। ব্রাজিল সুপারস্টারের শট এক মেক্সিকান ডিফেন্ডারে পায়ে লেগে পোস্টের সামান্য বাইরে দিয়ে যায়। ম্যাচের এই মুহূর্তে এসে খেই হারিয়ে ফেলে মেক্সিকো। এলোমেলো হয়ে যায় তাদের খেলা। ৮৯তম মিনিটে গোলটা নেইমারই করতে পারতেন। দৌড়ে বাঁ দিক থেকে ডি-বক্সে ঢুকে পায়ের টোকায় বল বাড়ান গোলমুখে। কিন্তু তার শটটি মেক্সিকান গোলকিপারের পা ছুঁয়ে চলে আসে ফিরমিনোর কাছে। নিখুঁত শটে বল জালে জড়াতে এতটুকু ভুল করেননি এই তারকা।