jagannathpurpotrika-latest news

আজ, ,

সর্বশেষ সংবাদ
«» দরিদ্র পরিবারে এম এ সাত্তার ফাউন্ডেশনের ঈদ উপহার বিতরণ «» যুক্তরাজ্য বিএনপির সহ-সভাপতি এম এ সাত্তারের ঈদের শুভেচ্ছা «» উম্মাহ হেন্ডস ইউকে’র পক্ষথেকে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অসহায়দের মাঝে ত্রান ও অর্থ বিতরণ «» জগন্নাথপুর উপজেলা পরিষদে চেয়ারম্যান প্রার্থী সৈয়দ তালহা আলমের ঈদের শুভেচ্ছা «» ছাতকে গলায় ওড়না পেছানো অবস্থায় লাশ উদ্ধার «» জগন্নাথপুরে লাইসিয়াম কিন্ডারগার্টেন স্কুল’র পক্ষ থেকে ঈদ উপলক্ষে নগদ ২ লক্ষ টাকা বিতরণ «» নবীগঞ্জে অর্থ বিতরণ করলেন সাংসদ মিলাদ «» প্রবাসীরা দেশে অবদান রেখে ইতিহাসে স্থান করে নিয়েছেন- এমপি মোকাব্বির খান «» জগন্নাথপুরে বিএনপির চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার সুস্থতা কামনায় দোয়া ও ইফতার মাহফিল «» শ্রীমঙ্গলে প্রবাসীকে হয়রানীর অভিযোগ: ইউপি চেয়ারম্যান সুফি মিয়ার প্রত্যাখ্যান



ক্ষমতায় বসানো বা নামানো হেফাজতের কাজ নয়: বাবুনগরী

ডেস্ক রিপোর্ট :: হেফাজতে ইসলামের আমির মাওলানা জুনায়েদ বাবুনগরী বলেছেন, ‘হেফাজতে ইসলাম একটি অরাজনৈতিক ও ধর্মীয় সংগঠন। কাউকে ক্ষমতা থেকে নামানো কিংবা কাউকে ক্ষমতায় বসানো হেফাজতের কাজ নয়। আমরা শান্তিপ্রিয় এবং সহিংসতার বিরুদ্ধে।’ বৃহস্পতিবার (৮এপ্রিল) রাতে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ কথা বলেন। এসময় তিনি সম্প্রতি হেফাজতের মহাসচিব মাওলানা নুরুল ইসলামসহ কেন্দ্রীয় নেতাদের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানান। সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে জুনায়েদ বাবুনগরী বলেন, ‘হামলা-মামলা ও দমন-পীড়ন চালিয়ে কখনও সহিংসতা রোধ করা সম্ভব নয়। প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ জানানো জনগণের সাংবিধানিক অধিকার। সেই অধিকার হরণ করে শান্তি প্রতিষ্ঠা করা যায় না। কোনও বিদেশি আধিপত্যবাদী শক্তির প্ররোচনায় কোনও ধরনের আত্মঘাতী ও হঠকারী সিদ্ধান্ত নেওয়া থেকে বিরত থাকতে সরকারকে আহ্বান করছি।’ বাবুনগরী আরও বলেন, ‘বিগত ২৬ মার্চ শুক্রবার জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে নিরীহ শান্তিপ্রিয় মুসল্লিদের ওপর পুলিশের সহযোগী হেলমেট পরিহিত ও চাপাতি-রামদা হাতে একদল সন্ত্রাসী বিনা উসকানিতে আক্রমণ চালায়। পাশাপাশি পুলিশও মুসল্লিদের ওপর গুলি চালায়। এর পরিপ্রেক্ষিতে সাধারণ মুসল্লিরা আত্মরক্ষার্থে গণপ্রতিরোধ গড়ে তোলে।’ তিনি বলেন, ‘সেদিনের সংঘাতের ভিডিওগুলোতে স্পষ্টভাবে দেখা গেছে কারা সহিংসতা উসকে দিয়েছিল। সারা দেশের মানুষ ভিডিওগুলো দেখেছে। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমেও সেদিনের ঘটনা কাভারেজ পেয়েছিল। সেদিন হেফাজতে ইসলামের কোনও কর্মসূচি ছিল না। সুতরাং, নিছক রাজনৈতিক উদ্দেশে হেফাজতের ১৭ জন কেন্দ্রীয় নেতার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মিথ্যা মামলা করা হয়েছে।’